সাতক্ষীরার কলারোয়া সীমান্ত দিয়ে চোরাই পথে ভারত থেকে আনা ৯ কেজি ৭০০ গ্রাম রুপার গহনাসহ এক চোকারবারীকে আটক করেছে বিজিবি। বুধবার সকালে উপজেলার রাইটা সীমান্ত থেকে উক্ত রুপার গহনাসহ তাকে আটক করা হয়। জব্দকৃত রুপার গহনা মূল্য ১২ লাখ ৬১ হাজার টাকা।

 

আটককৃত চোরাকারবারীর নাম শামীম হোসেন (২৮)। তিনি সাতক্ষীরা শহরের রসুলপুর এলাকার মৃত মহব্বত সরদারের ছেলে।

বিজিবি জানায়, চোরাইপথে ভারত থেকে রুপার একটি বড় চালান আনা হচ্ছে এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সকালে সাতক্ষীরা ৩৩ ব্যাটালিয়নের আওতাধীন ঝাউডাংগা বিশেষ ক্যাম্পের টহল কমান্ডার নায়েক শ্রী প্রশান্ত কুমারের নেতৃত্বে একটি টহলদল সীমান্ত পিলার ১৩/৩-এস এর ১০ আরবি হতে আনুমানিক ৫ কিলোমিটার বাংলাদেশের অভ্যন্তরে কলারোয়া উপজেলার রাইটা নামক স্থানে চোরাচালান বিরোধী অভিযান পরিচালনা করে উক্ত চোরাকারবারীকে আটক করা হয়।

 

এ সময় তার কাছ থেকে ভারতের তৈরী বিভিন্ন ধরনের ৯ কেজি ৭০০ গ্রাম রুপার গহনা জব্দ করা হয়। জব্দকৃত রুপার গহনার বাজার মূল্য ১২ লাখ ৬১ হাজার টাকা।

 

সাতক্ষীরা ৩৩ বিজিবি ব্যাটেলিয়নের অধিনায়ক লেঃ কর্ণেল আল মাহমুদ জানান, সাতক্ষীরা সীমান্ত দিয়ে চোরাইপথে নিয়ে আসা এ রুপার গহনা ঢাকায় নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল। তিনি আরো জানান, আটককৃত চোরাকারবারীর বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনের নিমিত্তে কলারোয়া থানায় সোপর্দ এবং জব্দকৃত রুপার গহনা গুলো সাতক্ষীরা ট্রেজারী অফিসে জমা করার কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

SHARE