দেবহাটায় মানবেতর জীবনযাপন করা মাদ্রাসা শিক্ষকের সাংবাদিক সম্মেলন
কে এম রেজাউল করিম দেবহাটা ব্যুরো\ দেবহাটায় মহামান্য সুপ্রিম কোর্টের আদেশ অমান্য করায় মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে পরিবার পরিজন নিয়ে মানবেতর জীবনযাপন করা এক মাদ্রাসা শিক্ষক সাংবাদিক সম্মেলন করেছেন। দেবহাটা রিপোটার্স ক্লাবে মঙ্গলবার বিকাল ৪ টায় অনুষ্ঠিত উক্ত সাংবাদিক সম্মেলনটি করেন দেবহাটা উপজেলার হাদীপুর জগন্নাথপুর আহছানিয়া আলীম মাদ্রাসার সহকারী শিক্ষক ফজর আলী। লিখিত বক্তব্যে ফজর আলী বলেন, তিনি সহকারী শিক্ষক (আই.সি.টি) হাদিপুর জগন্নাথপুর আহ্ছানিয়া আলিম মাদ্রাসা, দেবহাটা, সাতক্ষীরা।
বিগত ০১/১০/২০০৩ ইং তারিখে অত্র মাদরাসায় যোগদান করে সুনামের সাথে কর্মরত থাকা অবস্থায় মাদ্রাসার কিছু কুচক্রী মহলের ষড়যন্ত্রে ও পূর্ব শত্রæতার জের ধরে তাকে মিথ্যা মামলায় গ্রেপ্তার করে গত ইং ২৭/০৬/২০১৮ তারিখের ম্যানেজিং কমিটি বেআইনীভাবে তাকে সাময়িক বরখাস্ত করে অদ্যবধি চলমান রেখেছে এবং কোন বেতনভাতা দিচ্ছেনা। মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষের নিকট বরখাস্ত প্রত্যাহারে দাবীতে একাধিকবার প্রয়োজনীয় কাগজপত্রের সংযুক্তির আলোকে আবেদন করলেও সাময়িক বরখাস্ত প্রত্যাহার/কোন বেতনভাতা প্রদান করেনি।
ফজর আলী বলেন, এমনকি তার পক্ষে ১) মহামান্য হাইকোটের রিটপিটিশন নং ৭৫৫২/২০২১ এর আদেশ, ২) বাংলাদেশ সুপ্রীম কোর্টের আপিল নং- ১৮/২০২২ এর আদেশ, ৩। বাংলাদেশ মাদরাসা শিক্ষা বোর্ডের স্মারক নং ১২/২২৭৯/৬ তারিখ ২৬/০৬/২০১৯ এর আদেশ, ৪। বাংলাদেশ মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের স্মারক নং-বামাশিবো/প্রসা/সাত-১২/২/৫৪, তারিখ: ২৭-১০-২০২১ইং এর আদেশ এবং ৫। বাংলাদেশ মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের স্মারক নং ১২/০২/৮২ তারিখ ৪/৪/২০২২ এর আদেশ এর কপি মাদ্রাসায় জমা প্রদান করলেও তারা সে আদেশকে বৃদ্ধাঙ্গলী দেখিয়ে তাকে যোগদান করতে দিচ্ছেনা।
এবিষয়ে গত ইং ৭ এপ্রিল, ২০২২ ইং তারিখে দেবহাটা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে আবেদন জানালে তিনি কাগজপত্র পর্যালোচনা করে মাদ্রাসা কর্র্তৃপক্ষকে তাকে স্বপদে পুর্নবহালের ব্যবস্থা গ্রহনের নির্দেশনা দিলেও কর্তৃপক্ষ সে নির্দেশনাও মানছে। বর্তমানে তিনি পরিবার পরিজন নিয়ে মানবেতর জীবনযাপন করছেন উল্লেখ করে বলেন, বাংলাদেশের সর্বোচ্চ আদালতের নির্দেশ মেনে মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষ যাতে তাকে স্বপদে পুর্নবহাল করে তার সুব্যবস্থা গ্রহনে তিনি সংশ্লিষ্টদের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন।