জমজমের পানি নিয়ে সৌদি কর্তৃপক্ষের নতুন নির্দেশনা

অনলাইন ডেস্কঃ জমজম কূপের পানি নিয়ে মুসল্লিদের জন্য নতুন করে নির্দেশনা জারি করা হয়েছে। মূলত পবিত্র দুই মসজিদের মুসল্লিদের জমজমের পানি গ্রহণ ও পাত্র থেকে পান করার ক্ষেত্রে কিছু নির্দেশনা মেনে চলার পরামর্শ দিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

সৌদি আরবের হজ ও ওমরাহ মন্ত্রণালয় থেকে জারি করা ওই নির্দেশনায় জমজমের পানি গ্রহণ ও পান করার সময় অন্য মুসল্লিদের সঙ্গে ধাক্কাধাক্কি এড়িয়ে চলা, পরোপকারের অনুশীলন ও প্রবীণ ব্যক্তিদের অগ্রাধিকার দেয়ার পরামর্শ দেয়া হয়েছে। নতুন ওমরাহ মৌসুমকে সামনে রেখে এসব নির্দেশনা জারি করা হয়েছে। এতে আরও বলা হয়েছে, জমজমের পানি পান করার পর একবার ব্যবহারযোগ্য কাপগুলো (ওয়ান টাইম কাপ) নির্ধারিত স্থানে ফেলতে হবে। আর পান করার সময় তা সতর্কতার সঙ্গে করতে হবে, যেন মেঝেতে পানি না পড়ে। কারণ মেঝেতে পানি পড়লে খুব দ্রুত পরিবেশ নোংরা হয়ে যায়।

জমজম কূপ মক্কায় মসজিদুল হারামের অভ্যন্তরে অবস্থিত। এটি কাবা থেকে ২০ মি (৬৬ ফুট) পূর্বে অবস্থিত। এর জীবাণুমুক্ত পানি মক্কার মসজিদুল হারাম ও মদিনার মসজিদে নববিতে বিতরণ করা হয়। ধর্মপ্রাণ মুসলিমদের কাছে জমজমের পানি বিশেষ গুরুত্ব বহন করে। অন্য দেশ থেকে যারা সৌদি আরবে ওমরাহ ও হজ পালন করতে যান, তারা দেশে ফেরার সময় প্রায়ই জমজমের পানি কিনে নিয়ে যান। এই পানি সাধারণত তারা আত্মীয়-স্বজন ও বন্ধুদের উপহার দিয়ে থাকেন।

বর্তমানে নুসুক অ্যাপের মাধ্যমেই ওমরাহ ও হজযাত্রীরা নির্দিষ্ট পরিমাণ জমজমের পানির জন্য বুকিং দিতে পারেন। সম্প্রতি বাংলাদেশিদের জন্যও নুসুক অ্যাপটি উন্মুক্ত করেছে সৌদি আরবের ওমরাহ ও হজ মন্ত্রণালয়।