বিশ্বকবির ১৬১তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা, কবিতা আবৃত্তি ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান

বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর এঁর ১৬১তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে খেলাঘর আসর কেশবপুর উপজেলা শাখার আয়োজনে কবিতা আবৃতি, আলোচনা সভা এবং সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে। শুক্রবার (১৩ মে) বিকালে পৌরশহরের টাইগার পয়েন্টে ওয়ার্ড কার্যালয়ে ওই অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

 

 

 

উক্ত অনুষ্ঠানে খেলাঘর আসরের কেশবপুর উপজেলা শাখার সভাপতি আব্দুল মজিদ (বড়ভাই) সভাপতিত্ব করেন। সূর্যতরুণ খেলাঘর আসরের সভাপতি আমিনুর রহমান বুলবুল এর সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন কেশবপুর উপজেলা নাগরিক সমাজের সভাপতি এ্যাডভোকেট আবু বক্কার
সিদ্দিকী। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, খুলনা  পিটিআই ইনস্ট্রাক্টর মিহির হালদার, ন্যাশনাল প্রেস সোসাইটি গণমাধ্যম ও মানবাধিকার সংস্থা কেশবপুর উপজেলা শাখার সভাপতি শামীম আখতার মুকুল, উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি এস আর সাঈদ, প্রভাষক কানাই লাল ভট্টাচার্য। অনান্যদের মধ্যে আরো বক্তব্য
রাখেন, ন্যাশনাল প্রেস সোসাইটি গণমাধ্যম ও মানবাধিকার সংস্থা কেশবপুর উপজেলা শাখার সহ-সভাপতি বাবুর আলী গোলদার, খেলাঘর আসর কেশবপুর উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক ও ওয়ার্ডের পরিচালক সৈয়দ আকমাল হোসেন, উদিচী কেশবপুর উপজেলা শাখার সভাপতি অনুপম মোদক, সাংবাদিক দিলীপ
মোদক প্রমূখ।

 

 

 

আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান শেষে সকলেই দাঁড়িয়ে জাতীয় সংগীত পরিবেশন এর মাধ্যমে সমাপ্তি করা হয়। অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন, ন্যাশনাল প্রেস সোসাইটি গণমাধ্যম ও মানবাধিকার সংস্থা কেশবপুর উপজেলা শাখার প্রকাশনা বিষয়ক সম্পাদক মাসুদা বেগম বিউটি, উদিচী কেশবপুর উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক নিমাই চাঁদ নন্দন, সাংবাদিক অলিয়ার রহমান সহ উপজেলা খেলাঘর আসরের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ।

 

 

 

উল্লেখ্য, বাঙালি সত্তা ও সংস্কৃতির মহানায়ক রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর ১৬১বছর আগে ১২৬৮ বঙ্গাব্দের ২৫ বৈশাখ কলকাতা জোড়াসাঁকোর ঠাকুরবাড়িতে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ছিলেন অগ্রণী বাঙালি কবি, ঔপন্যাসিক, সংগীতস্রষ্টা, নাট্যকার, চিত্রকর, ছোটগল্পকার, প্রাবন্ধিক, অভিনেতা, কণ্ঠশিল্পী ও দার্শনিক। তাকে বাংলা ভাষার সর্বশ্রেষ্ঠ সাহিত্যিক মনে করা হয়। রবীন্দ্রনাথকে গুরুদেব, কবিগুরু ও বিশ্বকবি অভিধায় ভূষিত করা হয়। ১৯১৩ সালে গীতাঞ্জলি কাব্যগ্রন্থের ইংরেজি অনুবাদের জন্য তিনি এশীয়দের মধ্যে সাহিত্যে প্রথম নোবেল পুরস্কার লাভ করেন।

SHARE